< তিসি বীজের উপকারিতা | তিসি বীজ খাওয়ার নিয়ম - সঠিক তথ্যের ঘর
বীজ চূর্ণ পাউডারস্বাস্থ্য

তিসি বীজের উপকারিতা | তিসি বীজ খাওয়ার নিয়ম

তিসি বীজের উপকারিতা , তিসি বীজ খাওয়ার নিয়ম

আসসালামু আলাইকুম। recipegor.com চাইতে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের আজকের রেসিপিটি হচ্ছে তিসি বীজ খাওয়ার নিয়ম এবং সাদা তেল খেলে কি হয় তিসি বীজের গুনাগুন গুলি নিয়ে আলোচনা করব। তিসি বীজের উপকারিতা অনেক রয়েছে এ সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হবে এই পোস্টটিতে ।

তিসি বীজের উপকারিতা
তিসি বীজের উপকারিতা

তিসি বীজে রয়েছে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি এসিড, প্রোটিন, কার্বোহাইড্রেট, ফাইবার, আয়রন, ম্যাগনেসিয়াম,ক্যালসিয়াম, ফসফরাস, অ্যামিনো অ্যাসিড, আর্জিনাইন এবং গ্লুটামাইন, এছাড়াও এটি ভিটামিন এ, ভিটামিন সি, ভিটামিন বি-৬,ভিটামিন ডি দ্বারা সমৃদ্ধ

তিসি বীজে থাকা প্রতিটি উপাদান কমবেশি আমাদের শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে আমাদের ছোটখাটো যেকোনো রোগের পাশাপাশি কঠিন অনেক রোগ হবার ঝুঁকি কমাতেও সাহায্য করে।
আমাদের শারীরিক সুস্থতা নিশ্চয়তা দেয়ার পাশাপাশি এটি আমাদের ত্বক এবং চুলের জন্য ও অনেক ভালো কাজ করে। এর গুনাগুনের কথা বলে শেষ করা যাবে না তাইতো এই তিসি বীজ খাওয়ার নিয়ম সম্পর্কে আমাদের অবগত হওয়া উচিত।

তিসি বীজ খাওয়ার নিয়ম

তিসি বীজ কাচা বা গুড়ো ২ রকমেই খাওয়া যায়। সুস্থ থাকার জন্য প্রতিদিন ছোট চামচে এক চামচের মতোই তিসি বীজ খাওয়াই যথেষ্ট।

আরো পড়ুনঃ  জন্ম নিয়ন্ত্রণ পিলের নাম ও দাম | খাওয়ার বড়ি | ফেমিকন | নরেট ২৮ | conrena-R
তিসি বীজ খাওয়ার নিয়ম
তিসি বীজ খাওয়ার নিয়ম

সকালে ঘুম থেকে উঠে খালি পেটে এই বীজ সেবনের অনেক উপকারিতা রয়েছে। এটি সারাদিন আপনার শরীর কে এক্টিভ এবং হেলদি রাখতে পারে। খুব কম খাবার খেলেও তেমন ক্লান্তি লাগেনা ।সারারাত তিসি বীজ পানিতে ভিজিয়ে রেখে সকালে এই পানি সেবন করতে পারেন বীজসহ কিংবা বীজ ছাড়া। কেউ যদি বীজ ছাড়া সেবন করতে চান তাহলে তা ছেকে নিতে পারেন।

এছাড়াও দিনের যেকোনো সময় ই এই বীজ সেবন করা যায়। কিন্তু প্রয়োজনের অধিক সেবনে শরীরে নানাবিধ সমস্যার দেখা দিতে পারে। তাই অতিরিক্ত তিশি বিষ খাওয়া থেকে বিরত থাকবেন।

কারো যদি এক দুই দিন তিসি বীজ সেবনের ফলে কোনো এলার্জি বা পেটে ব্যাথা, জ্বালা করে সেক্ষেত্রে সাথে সাথে তা খাওয়া বন্ধ করে দিতে হবে। এবং চিকিৎসক এর পরামর্শ নিতে হবে।

তিসি বীজের অপকারিতা / সতর্কতা

গর্ভাবস্থায় বা যেসব মায়েরা তার সন্তানদের বুকের দুধ পান করাচ্ছেন তাদের এই বীজ খাওয়া উচিত নয়। যাদের অলরেডি হাই ব্লাড প্রেসার এবং ক্যান্সার রয়েছে তারা এই বীজ গ্রহণের পূর্বে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে নিবেন। কোনো একটি রোগের জন্য যদি অলরেডি মেডিসিন সেবনরত হয়ে থাকেন তাহলে এই বীজ খাওয়া হতে বিরত থাকুন।

আরো পড়ুনঃ  monas 10 এর কাজ কি | মোনাস ১০ খাওয়ার নিয়ম।

You cannot copy content of this page

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker